মঙ্গলবার, ১১ অগাস্ট ২০২০, ০৭:৩৮ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
‌বিএনপি নেতা আলীমের মায়ের মৃত্যুতে স্থায়ী কমিটির সদস্য টুকুর শোক প্রকাশ সিরাজগঞ্জে বিএনপির উদ্যোগে বন্যা ও নদী ভাঙনে ক্ষতিগ্রস্ত অসহায় মাঝে ত্রান বিতরণ সিরাজগঞ্জ জজকোর্টের সাবেক পিপি রেজাউল করিম তালুকদারের কবর যিয়ারত করে দোয়া করলেন বিএনপির নেতৃবৃন্দ সিরাজগঞ্জ কামারখন্দে মহাসড়কে বাসের ধাক্কায় ১ জন নারীর মৃত্যু কামারখন্দে ঈদের আনন্দ দিগুণ করতে ভেলা বাইচ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত কামারখন্দে আউশ মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত কোরবানীর বর্জ্য পরিশোধন অভিযানে মুরাদের বাবা কামারখন্দে বন্যা কবলিত এলাকায় ত্রাণ বিতরণ করলেন এমপি মুন্না সিরাজগঞ্জ অনলাইন স্কুলের পাঠদান কার্যক্রম চলছে ১০০ টি পরিবারের হাসি ফুটালেন আ’লীগ নেতা মালেক
ইসাবেলা ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে অসহায় পরিবারকে নগদ অর্থ ও শীত বস্ত্র প্রদান

ইসাবেলা ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে অসহায় পরিবারকে নগদ অর্থ ও শীত বস্ত্র প্রদান

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

কামারখন্দে এক সাথে তিন সন্তান জন্ম দেওয়া অসহায় পরিবারের পাশে দাঁড়িয়েছে ইসাবেলা ফাউন্ডেশন। শনিবার (২৮ ডিসেম্বর) বিকেলে কামারখন্দ উপজেলার কোনবাড়ী গ্রামে ইসাবেলা ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে অসহায় পরিবারকে নগদ অর্থ ও তিনটি সন্তানের জন্য শীত বস্ত্র ও পোষাক প্রদান করেন সিরাজগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক জাকির হোসেন ও সিরাজগঞ্জ জেলার কো-অরডিনেটর আদনান মুক্তা।

উল্লেখ্য কামারখন্দ উপজেলার কোনাবাড়ী গ্রামের ইটভাটায় শ্রমিকের কাজ করে কোন রকমে সংসার চালান একসাথে তিন সন্তান জন্ম নেওয়া সন্তানের পিতা মো. রফিকুল ইসলাম। আগেরও একটি ১২ বছরের ছেলে সন্তান আছে, তাকে কষ্ট করে মাদরাসায় লেখা পড়া করাচ্ছেন। এখন এই শীতের মধ্যে আমার স্ত্রী তিন সন্তানের জন্ম দেওয়াতে খুশি। কিন্ত দুঃখের বিষয় আমার সন্তানদের সঠিক ভাবে চাহিদা পূরণ নিয়ে চিন্তায় আছি। এমন একটি পোস্ট (২৩ ডিসেম্ব) আমাদের সিরাজগঞ্জ গ্রুপে প্রকাশ হলে ইসাবেলা ফাউন্ডেশনের নজরে আসে।

পরিবেশ রক্ষা, সামাজিক উন্নয়ন এবং দেশের ইতিহাস-ঐতিহ্য নিয়ে নিরন্তর কাজ করে যাচ্ছে ইসাবেলা ফাউন্ডেশন।

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালের ২৪ ডিসেম্বর পরিবেশ ও জীববৈচিত্র সংরক্ষণে এক দল উদ্যমী গবেষকের হাত ধরে আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা শুরু করে ইসাবেলা ফাউন্ডেশন। বিশিষ্ট সমাজসেবক ও লেখক সৈয়দা ইসাবেলার নামানুসারে তাঁর সুযোগ্য সন্তান পানি সম্পদ মন্ত্রণালয়ের সচিব কবির বিন আনোয়ার এই গবেষণা প্রতিষ্ঠানটির প্রতিষ্ঠাতা। এই দীর্ঘ পথ পরিক্রমায় চট্টগ্রামের কর্ণফুলী ও হালদা নদী, সোনাদিয়া দ্বীপ, হাঁসের দ্বীপ, টাঙ্গুয়ার হাওর, সেন্টমার্টিন, রেমাকালেঙ্গা, দিনাজপুর রামসাগর ও শাল বন, তাওয়াকুচা বন (ঝিনাইগাতি, শেরপুর), সাঙ্গু রিজার্ভ ফরেস্ট ও সাঙ্গু নদী এবং মাতামুহুরি নদীসহ বিভিন্ন স্থানে সফলভাবে নিজেদের অনুসন্ধান কার্যক্রম চালিয়েছে ইসাবেলা ফাউন্ডেশন।

এছাড়া বঙ্গোপসাগরে অবস্থিত সোয়াচ অব নো গ্রাউন্ডে ইসাবেলা গবেষণা টিম দুটি সফল গবেষণা অনুসন্ধান চালিয়েছে। অন্যদিকে, দেশজুড়ে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস-ঐতিহ্য রক্ষা ও বিভিন্ন সামাজিক সেবামূলক কাজে আত্মনিয়োগ করেছে ইসাবেলা ফাউন্ডেশন।

 





© All rights reserved © 2018 somoybangladesh24.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com